মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর ২০২১, ০৪:৫০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
যুবক কে অপহরণ করে বিয়ে করলেন তরুণী |বাংলাদেশ দিগন্ত প্রধানমন্ত্রীর অনুদানের চেক হস্তান্তর | বাংলাদেশ দিগন্ত ইসলাম ত্যাগ করে দেখেন দুই দিন মন্ত্রী থাকতে পারেন কিনা | বাংলাদেশ দিগন্ত টেকনাফে বিএমএসএফ এর পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি প্রদান |বাংলাদেশ দিগন্ত টেকনাফে আল-আরাফাহ ইসলামী ব্যাংক হ্নীলা বাজার আউটলেট শাখার উদ্বোধন |বাংলাদেশ দিগন্ত টেকনাফে মাদক আইসসহ গ্রেফতার-১ | বাংলাদেশ দিগন্ত হোয়াইক্যংয়ে টমটম দুর্ঘটনায় এক শিশু নিহত | বাংলাদেশ দিগন্ত টেকনাফে ৯ মামলার আসামি গ্রেফতার |বাংলাদেশ দিগন্ত উখিয়ায় যাত্রা শুরু হলো জাইতুন রেস্টুরেন্ট এন্ড ক্যাফে রোহিঙ্গাদের শীর্ষ নেতা মুহিববুল্লাহ সন্ত্রাসীদের গুলিতে নিহত |বাংলাদেশ দিগন্ত

“আমি মেজর (অবঃ)সিনহা বলছি” মোহাম্মদ আবুল হোছাইন হেলালী |বাংলাদেশ দিগন্ত

বার্তা পরিবেশক:
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ১৪ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ২২১ বার পঠিত

আমি মেজর (অবঃ)সিনহা বলছি
××××××××××××××××××××××××
মোহাম্মদ আবুল হোছাইন হেলালী

আমি মেজর (অবঃ) সিনহা বলছি –
পাচারের রহস্য উদঘাটনে এক মিশন
নিয়ে ছিল আমার অভিযাত্রা,অবিরাম
যেখানে পাচার হয় নিরহ মানুষ ও অস্ত্র
সাথে হয় পাচার;দেদারছে মরণ নেশা ইয়াবা
বিচার বহির্ভুত মানুষ মেরে কুড়ায় ওরা বাহবা।

পাচারে জড়িত দেশদ্রোহী কুলাঙ্গারের দল
আমার মিশনের কাজ করতে পেরে আঁচ –
গোপনে মৃত্যুর ফাঁদ বসায় আমাকে হত্যার
চেয়েছিলাম কল্যাণ আমি দেশ-জাতি সবার।

আমি মেজর (অবঃ)সিনহা বলছি –
আমি নিবেদিত দেশপ্রেমিক একজন নাগরিক
দেশমাতৃকা রক্ষায় একজন গর্বিত সৈনিক,
দেশ ও জাতির অবক্ষয় রুধে গোপন রহস্য
উদঘাটনে দুঃসাহসীক অভিযানে অবিচল
অকুতোভয় এক স্বাপ্নিক নাবিক অবিকল।

মাদক ও মানব পাচারকারী আর নির্বিচারী খুনিরা
জেনে গেলো আমার মিশন হবে তাদের বিরুদ্ধে –
তাদের অপকর্মের কাল নাগিনী, সাক্ষাৎ হব যমদূত
আমি চেয়েছিলাম উখিয়া-টেকনাফ সহ দেশ হতে
খুনে ও পাচারে জড়িত গংদের ধরতে এবার ভুত।

হে রাষ্ট্র কি বিশ্রী ফাঁদ এরা আটলো –
ডাকাতির বানোয়াটী খেলা,জঙ্গিবাদের বিশ্রী মেলা
আমাকে দিয়ে সাজালো ইয়াবা,গাঁজা আর মদের
বোতল দিয়ে এক ন্যাক্কারজনক নারকীয় নাটক!
থরে-থরে বসালো ফাঁদ,করতে আমায় আটক।

শেষতক কতিপয় জাতির শত্রু,দেশদ্রোহীরা আটকালো
আমি নিশ্চিত ছিলাম রাষ্ট্র আমাকে নিরাপত্তা দেবে
সদা-সর্বদা ছিলাম দেশ ও জাতি রক্ষায় নিবেদিত
গর্বিত সৈনিক,অসত্যের বিরুদ্ধে রক্তগঙ্গা গৈরিক
সুশৃঙ্খল বাহিনীর সদস্য আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল,
মাফিয়াচক্র আর ঘাতকেরা হাসলো হাসি কুঠিল-
গুলি আমার বুকে করেনি,করেছে স্বাধীন দেশের বুকে

আমি এক বীর মুক্তিযুদ্ধার গর্বিত সন্তান –
দেশের স্বাধীনতার্জনে আমার বাবার ছিল অবদান।

শুণ হে জাতি, ছিলাম আমি গর্বিত পিতার সন্তান
আমারও ছিল দেশ-জাতি রক্ষার অসংখ্য অবদান,
বুলেট লাগেনি আমার বুকে,রবে আদোরে মা শোকে
লেগেছে প্রিয় বাহিনীর বুকে, দুঃখিত মায়ের দু’খে।

আমি শপথ নিয়েছিলাম গর্বিত বাহিনীতে
দেশ রক্ষায় নিজেকে আত্মাহুতি দেবো –
বাহিনীর সর্বোচ্চ মর্যাদা রক্ষা করবো,
তাইতো সেদিন আইনের প্রতি শ্রদ্ধা দেখিয়ে
দু’হাত তুলে যায় সামনে নির্দেশ মতো এগিয়ে।

ছিঃ ছিঃ ছিঃ খুনিদের গায়ে ইউনিফর্ম ছিল
আমারও ছিল উর্দি,কেমনে পারলে তারা করতে ফন্দি
রাষ্ট্র ও সত্যের বিরুদ্ধে লোভাতুর দৃষ্টিতে
যা নাই ছিলোনা সুশৃঙ্খল বাহিনীর কৃষ্টিতে।

আপনার-আমার টাকায় কেনা সাথে অস্ত্র
নির্লজ্জের মতো বেহায়া ভাষায় গালি দিয়ে
বুঝে উঠার আগে গুলি করে আমার বুকে,
পাষানেরা ঝাজরা করে দিল আমাকে –
তখনো আমি বাঁচার ক্ষীণ আশাতে ছিলাম
জানতে চায়- হে রাষ্ট্র,হে সংবিধান,হে জাতি
পাবে কি আমার শোকাতুর মা,দেশপ্রেমিক জনতা
আমার খুনের ন্যায় বিচারের হালখাতা! নাকি
আমাকে নিয়েও হবে কলংকিত অধ্যায় রচনা ?

আরেকটি কথা না বললে নয়
সত্যি মানবতার হবে পরাজয় –
হে জাতি, হে রাষ্ট্র,হে দেশের গর্বিত বাহিনী
বলছি শুণুন সেই লোমহর্ষক খুনের কাহিনী ;
বললেই হয়তো অপমানিত হবে শৃঙ্খল বাহিনী
তারপরও বাধ্য হলাম বলতে এ নির্লজ্জ কাহিনী –
কারণ মরণের পরেও আছি এক আশংকায়
প্রভূ আমার চোখ দিয়ে কান্নার বৃষ্টি বহায়।

ভয়েতে হয় যে সন্ত্রস্ত, আগামীতে যেন কোন
নাগরিকের না হয় এমন শোকের পরিণতি –
জাতির কপালে দেখি দূর্গতি,চলছে দেশে দূর্ণীতি
কি নির্দয় এদের মন!মৃত্যু নিশ্চিত করতে আবারও
গুলি চালালো আমার নিথর দেহে ঐ কাপুরুষেরা
ক্ষোভ ঝরালো আমার মৃত প্রায় দেহে বোটের লাথিতে
অবাক করা নির্দয় পাষানী হৃদে দানবীয় কায়দায়
লজ্জাস্কর খেলা কতেক খুনিরা আমাকে নিয়ে সাজায়।

হে রাষ্ট্র, হে জাতি,হে আমার প্রিয় বাহিনী
কোন বিচ্ছিন্ন ঘটনা নয় আমার মৃত্যুর এ কাহিনী
ছিল পূর্ব পরিকল্পিত, এরা করে আইনকে ধর্ষিত
আলাপ ছিল ফোন-ফোনে,ছিল তারা খুনের ধ্যানে,
পাচার চক্র গং,বেঁধেছিল তাদের সাথে সং –
তাদের মাঝে ছিল দুধে-ভাতে দেশদ্রোহীর বন্ধুত্ব
জেগে উঠো হে জাতির বিবেক থেকোনা আর ঘুমন্ত
এদেরও আনা হোক এবারে আইনের আওতায়
সত্যি মজলুমের পক্ষে ন্যায় বিচার প্রতিষ্টায়।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Developed By Bangla Webs
error: Content is protected !!