রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ০৬:২৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
উখিয়ার মুবিন স্থানীয় পত্রিকা থেকে পেলেন পদন্নোতি এবং বেস্ট কো- অপারেশন সম্মাননা সাবরাং উচ্চ বিদ্যালয়ের উদ্যোগে নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান ও মেম্বারদের বিজয় সংবর্ধনা প্রথম শ্রেণির শিক্ষার্থীর বয়স ১০৭ বছর! |বাংলাদেশ দিগন্ত প্রকাশিত সংবাদের একাংশের প্রতিবাদ মরজিনা মেম্বার অসুস্থ হয়ে চিকিৎসার জন্য ঢাকায়,সকলের দোয়া কামনা করেছেন টেকনাফে কমিউনিটি পুলিশিং ডে পালিত | বাংলাদেশ দিগন্ত যুবক কে অপহরণ করে বিয়ে করলেন তরুণী |বাংলাদেশ দিগন্ত প্রধানমন্ত্রীর অনুদানের চেক হস্তান্তর | বাংলাদেশ দিগন্ত ইসলাম ত্যাগ করে দেখেন দুই দিন মন্ত্রী থাকতে পারেন কিনা | বাংলাদেশ দিগন্ত টেকনাফে বিএমএসএফ এর পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি প্রদান |বাংলাদেশ দিগন্ত

খরুলিয়ায় সন্ত্রাসীদের হামলায় স্কুল শিক্ষক গুরুতর আহত |বাংলাদেশ দিগন্ত

বিশেষ প্রতিবেদক:
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ৩০ নভেম্বর, ২০২০
  • ২৬০ বার পঠিত

কক্সবাজার সদরের খরুলিয়ার বহুল আলোচিত বহু মামলার আসামী কোনারপাড়ার জুলফিকার মাস্টারের ছেলে সুকন্যা’র নেতৃত্বে স্কুল শিক্ষক শহিদুল ইসলাম বাবুর উপর অতর্কিত হামলা চালিয়ে নির্মমভাবে পিটিয়ে আহত করেছে সন্ত্রাসীরা।

শহিদুল ইসলাম বাবু খরুলিয়া সুতারচর এলাকার মাস্টার নুরুল ইসলামের ছেলে,সে পূর্ব খরুলিয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক।

জানা যায়,সুতারচর মসজিদের পাশে প্রায় সময় কিছু মাদকাসক্ত যুবক রাতদিন মাইক দিয়ে গানবাজনা করে এলাকায় বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে।তাদের এহেন কর্মকাণ্ডে এলাকার মানুষ অতিষ্ঠ এবং মাইকের আওয়াজের কারণে এলাকার মানুষ ঘুমাতে পারেনা,রাতে শিশুদের ঘুম ভাঙে এবং স্কুল পড়ুয়া ছাত্র-ছাত্রীদের লেখা-পড়ায় সমস্যায় হয় এমনকি রাতে ঘুম না হওয়াতে সকালে স্কুলে যেতে পারেনা।

উপায়ন্তর না দেখে মসজিদ কমিটির সভাপতি স্কুল শিক্ষক শহিদুল ইসলাম বাবু তাদের বখাটেপনা ও অপরাধ কর্মকাণ্ড নিয়ে প্রতিবাদ করাতে সন্ত্রাসীরা ক্ষীপ্ত হয়ে খরুলিয়া বাজারে প্রকাশ্যে সন্ত্রাসী কায়দায় মারধর করে গুরুতর জখম করে।

রবিবার (২৯ নভেম্বর)বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে বখাটে সুকন্যা সহ ১০/১২ জন সন্ত্রাসী খরুলিয়া বাজারে দিনের আলোতে শিক্ষক শহিদকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে এলোপাথাড়ি মারধর করে গুরুতর জখম করে ফেলে রেখে চলে যায়।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্হানীয় এক সচেতন ব্যক্তি জানান,
জুলফিকার মাষ্টারের সন্ত্রাসী ছেলে সুকন্যা’র কাছে পুরো খরুলিয়াবাসী জিম্মি হয়ে আছে। একের পর এক খরুলিয়ার সবকিছু দখল করে নিচ্ছে এই সন্ত্রাসী পরিবারটি।গত কয়েকবছরে সুকন্যা’র কাছে অসংখ্য মানুষ মার খেয়েছে, নির্যাতিত হয়েছে।প্রতিটি অপরাধ কর্মকাণ্ডে তারা নেতৃত্ব দেয়,তাদের ইশারায় সকল অপরাধ কর্মকাণ্ড পরিচালনা হয়। আর তাদেরকে শেল্টার দিচ্ছে একটি প্রভাবশালী মহল।

সচেতন মহল বলেন,তাদের এতো সাহস কিভাবে হয় ভাড়াটে গুন্ডা হয়ে একজন সরকারী শিক্ষকের উপর হামলা করে।তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে দ্রুত হামলাকারীদের আইনের আওতায় আনার জোর দাবিও জানান।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Developed By Bangla Webs
error: Content is protected !!