বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮:৫৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
নিরপেক্ষ ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন করুন: জেলা ইসলামী আন্দোলন টেকনাফে আনারস মার্কার সমর্থনে জনসভায় বিপুল ভোটে বিজয়ের আগাম ঘোষণা দিলেন স্বতন্ত্রপ্রার্থী নুর হোসেন! টেকনাফে নৌকা বিদ্রোহীদের জন্য কঠিন শাস্তি অপেক্ষা করছে; সাবরাং পথসভায় মেয়র মুজিব বৈদ্যুতিক পাখায় ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করতে সকলের দোয়া ও সমর্থন চেয়েছেন হ্নীলা ৫নং ওয়ার্ডের মেম্বার প্রার্থী আলী আহমদ প্রাইভেট পড়তে গিয়ে ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা স্কুলছাত্রী |বাংলাদেশ দিগন্ত টেকনাফে ইউপি নির্বাচনে প্রার্থীরা বেশীর ভাগই মাদকসহ বিভিন্ন অপরাধে সম্পৃক্ত অবিবাহিত পরিচয়ে চতুর্থ বিয়ের সময় হাতেনাতে ধরা! চকরিয়ায় অস্ত্রসহ গ্রেপ্তার-৩ |বাংলাদেশ দিগন্ত চাঁদাবাজির অভিযোগে কথিত ৩ সাংবাদিক পুলিশ হেফাজতে |বাংলাদেশ দিগন্ত টেকনাফে নির্বাচনি মাঠে আত্মস্বীকৃত ইয়াবা কারবারিদের অতিরিক্ত দৌঁড়ঝাপ |বাংলাদেশ দিগন্ত

জয় পরিমণিদের জয়! বাংলাদেশ দিগন্ত

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ১ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ৫৪ বার পঠিত

বাংলাদেশ কিন্তু ইসলামী শরীয়া আইনে পরিচালিত হয়না।তাই এদেশের সংবিধান যেমন প্রতিটি মানুষের ধর্মিয় স্বাধীনতা কে স্বীকার করে তেমনি মদের লাইসেন্স ও অনুমোদন দেয়।
আপনাকেই সিদ্ধান্ত নিতে হবে মসজিদে গিয়ে ইবাদত করবেন নাকি বারে গিয়ে মদ গিলবেন।
ইচ্ছার স্বাধীনতা শুধুমাত্র মানব আর জ্বীনকেই দেয়া হয়েছে।

মানব আর জ্বীন জাতিকে যদিও মহান শ্রষ্টা ইচ্ছার স্বাধীনতা দিয়েছেন কিন্তু তাদের কে সৃষ্টির উদ্দেশ্য ধ্যার্থহীন ভাবে বলে দিয়েছেন-“আমি জ্বীন আর মানব কে সৃষ্টি করিয়াছি আমার ইবাদত করার জন্য”।বর্তমানে অনেকে মুসলিম ঘরে জম্ম হয়ে মুসলিম সমাজে বেড়ে উঠার পরও আধুনিক শিক্ষায় শিক্ষিত অনেক ব্যক্তিবর্গ অনান্য ধর্মে ডাইভার্ট হয়ে যাচ্ছেন!

বর্তমানে আধুনিকতার নামে উলঙ্গপনাকে নিত্য নতুন ভাবেই প্রচারের আকর্ষনীয় ভংগিমায় অর্ধউলংগ পরিমনিদের কে নিঃস্বার্থ ভাবে মজা নিবারণের জন্য প্রচার করে নিজেদের অজান্তেই কিন্ত হাজারো সোনামনিদের উৎসাহী করে তুলিতেছে!

সময়ের পরিক্রমায় গত কিছুকাল আগে ও তসলিমা নাসরিন ধর্ম কে অবমাননা করার দায়ভার মাথায় নিয়ে দেশান্তর হতে বাধ্য হয়েছিলো! কিন্তু আজ যেন ইচ্ছার স্বাধিনতার সাথে মতপ্রকাশের অধিকার প্রতিষ্ঠা করার নামে আধুনিক চিন্তা-চেতনা ও পরিমনিদের অর্ধনগ্নতা হাজারো ধর্মদ্রুোহী- লক্ষ তাসলিমাদের নগ্ন সংস্কৃতির আগ্রসনের অভয়ারণ্য পরিণত হয়েছে। তাই বলা চলে আজতো পরিমনিদের জন্য বড্ডো সূদুর প্রসারি বিলাসী স্বপ্নের কাঙ্খিত সফলতা!

যে সফলতার জন্য অনেকদিন অপেক্ষা করতে হয়েছে হিন্দু-খৃষ্টান ও ইহুদী বলয় কে!যে সফল প্রজেক্টের নাম ছিলো -চলে বলে কৌশলে-যেভাবেই হোক মুসলিম নারিদের পর্দাহীন করো!

খসাতে হবেই নারীদের পর্দা!ধীরে ধীরে করে দাও লজ্জাহীন!এমন ভাবেই মেলামেশাতে অব্যস্ত করে দাও যেন অর্ধনগ্ন হতে হতে এমনিতেই নগ্ন হয়ে যায়!আর যদি প্রজেক্ট সফল হয়ে যায়-কখনও মুসলিম মহিলাদের গর্ভে জম্ম নিবেনা হযরত শাহজালাল,হযরত শাহপরান,তীতু মির,হাজী শরিয়ত উল্লাহদের মতো যুগের কান্ডারিরা। আজকের মুসলিম বাংলাদেশের ইতিহাস পরিমনিদেরই সফলতার ইতিহাস। লজ্জাবতী গাছের ঠিকই আগের মতো আছে লজ্জা !শুধুমাত্র মুসলিম নারিদের লজ্জা গ্রামীন ব্যাংকের একাউন্টে বন্ধক!!

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Developed By Bangla Webs
error: Content is protected !!