ঢাকা ১১:৩৫ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নবীনগরে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনায় তিনজনকে মোট তিন লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়।

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০১:৪৮:২০ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ১৪৭ বার পড়া হয়েছে

নবীনগরে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনায় তিনজনকে মোট তিন লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়।
হেলাল উদ্দিন ব্রাহ্মণবাড়িয়া নবীনগর প্রতিনিধি।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া নবীনগর শনিবার (১০ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে অনিয়মের বিরুদ্ধে ঝটিকা অভিযান পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তানভীর ফরহাদ শামীম। এসময় বিদ্যাকুট ১নং ওয়ার্ডের বিদ্যাকুট গ্রামে খালের মাঝখানে সরু দেয়াল তুলে দুইপাড় ভরাট করার চেষ্টায় শহিদ মিয়ার ছেলে নুর মিয়া অপরাধ স্বীকার করায় তাকে পরিবেশ সংরক্ষণ আইনে এক লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয় এবং নির্মিত দেয়াল ভেঙে দেওয়া হয়। অভিযান পরিচালনা কালে নুর মিয়াকে দুইদিনের মধ্যে মালামাল সরিয়ে নিতে নির্দেশ দেওয়া হয়। পরবর্তীতে আবার চেষ্টা করলে দ্বিগুণ শাস্তি দেয়া হবে বলে সতর্ক করা হয়েছে। অপর একটি অভিযানে পৌরসভার অন্তর্গত আলিয়াবাদ সংলগ্ন বুড়ি নদী থেকে দুইটি ড্রেজারের মাধ্যমে মাঝিকাড়া অবৈধভাবে ফসলি জমি ভরাটের অপরাধে ড্রেজার মালিক আওয়াল মিয়াকে এক লক্ষ পঞ্চাশ হাজার টাকা এবং আরেক ড্রেজার মালিক কাদির মিয়ার পক্ষে ম্যানেজার আবুল হোসেনকে পঞ্চাশ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এছাড়াও ড্রেজারের পাইপ নষ্ট ও সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়েছে। এসময় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তানভীর ফরহাদ শামীম বলেন নিয়মিত এ অভিযান অব্যাহত থাকবে এবং পরবর্তীতে আবারও ফসলি জমি ভরাট করলে নিয়মিত মামলা দেওয়া হবে।

Facebook Comments Box

নবীনগরে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনায় তিনজনকে মোট তিন লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়।

আপডেট সময় : ০১:৪৮:২০ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

নবীনগরে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনায় তিনজনকে মোট তিন লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়।
হেলাল উদ্দিন ব্রাহ্মণবাড়িয়া নবীনগর প্রতিনিধি।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া নবীনগর শনিবার (১০ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে অনিয়মের বিরুদ্ধে ঝটিকা অভিযান পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তানভীর ফরহাদ শামীম। এসময় বিদ্যাকুট ১নং ওয়ার্ডের বিদ্যাকুট গ্রামে খালের মাঝখানে সরু দেয়াল তুলে দুইপাড় ভরাট করার চেষ্টায় শহিদ মিয়ার ছেলে নুর মিয়া অপরাধ স্বীকার করায় তাকে পরিবেশ সংরক্ষণ আইনে এক লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয় এবং নির্মিত দেয়াল ভেঙে দেওয়া হয়। অভিযান পরিচালনা কালে নুর মিয়াকে দুইদিনের মধ্যে মালামাল সরিয়ে নিতে নির্দেশ দেওয়া হয়। পরবর্তীতে আবার চেষ্টা করলে দ্বিগুণ শাস্তি দেয়া হবে বলে সতর্ক করা হয়েছে। অপর একটি অভিযানে পৌরসভার অন্তর্গত আলিয়াবাদ সংলগ্ন বুড়ি নদী থেকে দুইটি ড্রেজারের মাধ্যমে মাঝিকাড়া অবৈধভাবে ফসলি জমি ভরাটের অপরাধে ড্রেজার মালিক আওয়াল মিয়াকে এক লক্ষ পঞ্চাশ হাজার টাকা এবং আরেক ড্রেজার মালিক কাদির মিয়ার পক্ষে ম্যানেজার আবুল হোসেনকে পঞ্চাশ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এছাড়াও ড্রেজারের পাইপ নষ্ট ও সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়েছে। এসময় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তানভীর ফরহাদ শামীম বলেন নিয়মিত এ অভিযান অব্যাহত থাকবে এবং পরবর্তীতে আবারও ফসলি জমি ভরাট করলে নিয়মিত মামলা দেওয়া হবে।

Facebook Comments Box