ঢাকা ০৪:১০ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বুড়িচং উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে তিন মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কে সমর্থন দিয়েছেন সাজ্জাদ হোসেন।

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৯:৫৮:০৭ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৩ মে ২০২৪ ৩৩ বার পড়া হয়েছে

 

আফছানা আক্তার,
কুমিল্লা, প্রতিনিধি
আগামী ৬ষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন-২০২৪ উপলক্ষ্যে কুমিল্লা বুড়িচং উপজেলা পরিষদের প্রার্থীদের মধ্যে চলছে নানা রঙের প্রতিযোগিতা। কেউ কেউ দৌড়ঝাপ করছেন জনগণের দুয়ারে দুয়ারে আবার কেউ বা দৌড়ঝাপ করছেন নেতাদের ঘরে ঘরে। চেয়ারম্যান পদে হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ০৪ জন প্রার্থী, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ০৪ জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ০২ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। তাদের মধ্যে কেউ কেউ নিজেদের এমপি’র সমর্থিত প্রার্থী (এমপি’র লোক) বলে নিজেদের দাবি করছেন। কেউ বা আবার নিজেদের দাবি করছেন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কুমিল্লা-০৫ আসনে ফুলকপি প্রতীকের প্রার্থী মোঃ সাজ্জাদ হোসেন এর সমর্থিত (সাজ্জাদ হোসেনের লোক)।

এদিকে সাজ্জাদ হোসেন এক প্রশ্নের জবাবে বলেন- আমি মুক্তিযোদ্ধার পক্ষের দল আওয়ামী লীগের সন্তান। যে কিনা মুক্তিযোদ্ধার পক্ষে থাকবে, মুক্তিযুদ্ধের আদর্শ মনে ধারণ করবে তার পক্ষেই আমি মাঠে কাজ করব।

তিনি যাকে সমর্থন করেছেন এই প্রশ্নে জবাবে তিনি বলেন- যেহেতু তারেক হায়দারের বাবা একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন এবং তারেক হায়দার একজন সৎ ও সহজ সরল প্রকৃতির মানুষ। সে কুমিল্লা জেলা পরিষদের সদস্য ছিল এবং সদস্য থাকাকালীন তার কর্মকান্ড সৎ ও নিষ্ঠার সাথে তিনি পালন করেছেন। তাই আমি বুড়িচং উপজেলার চেয়ারম্যান হিসেবে তারেক হায়দার কে সমর্থন জানাচ্ছি।
আর ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে সমর্থন জানাচ্ছি মোহাম্মদ জসীমউদ্দীনকে যার বাবাও একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন। আর জসীমউদ্দিন কে সমর্থন করার মূল কারন হলো সে আমার জানামতে সৎ ও নিষ্ঠাবান একজন মানুষ।

অন্যদিকে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে আমি লাভলী আক্তার কে সমর্থন জানাচ্ছি কেননা একাধারে সে একজন শিক্ষিত মহিলা এবং আবিদপুর কলেজের অধ্যাপিকা। এমন কি সে কুমিল্লা জেলা পরিষদের মহিলা সদস্য ছিলেন। তার বাবা একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা।

তিনি গণমাধ্যম কর্মীদের আরো বলেন – তারা প্রত্যেকে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সন্তান। মুক্তিযোদ্ধার রক্ত তাদের শরীরে বইছে। তারা যদি জনগণের প্রতিনিধি নির্বাচিত হয় আর যাই হোক বুড়িচং উপজেলার উন্নয়নের ধারা অব্যাহত থাকবে।

এদিকে প্রার্থীদের বক্তব্য থেকে জানা যায় তারা সকলেই মোঃ সাজ্জাদ হোসেন সমর্থিতা প্রার্থী এবং উক্ত তিনজন ই সাজ্জাদ হোসেনের নেতৃত্বে তাদের নির্বাচন পরিচালনা করবেন বলে গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন।

Facebook Comments Box

বুড়িচং উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে তিন মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কে সমর্থন দিয়েছেন সাজ্জাদ হোসেন।

আপডেট সময় : ০৯:৫৮:০৭ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৩ মে ২০২৪

 

আফছানা আক্তার,
কুমিল্লা, প্রতিনিধি
আগামী ৬ষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন-২০২৪ উপলক্ষ্যে কুমিল্লা বুড়িচং উপজেলা পরিষদের প্রার্থীদের মধ্যে চলছে নানা রঙের প্রতিযোগিতা। কেউ কেউ দৌড়ঝাপ করছেন জনগণের দুয়ারে দুয়ারে আবার কেউ বা দৌড়ঝাপ করছেন নেতাদের ঘরে ঘরে। চেয়ারম্যান পদে হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ০৪ জন প্রার্থী, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ০৪ জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ০২ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। তাদের মধ্যে কেউ কেউ নিজেদের এমপি’র সমর্থিত প্রার্থী (এমপি’র লোক) বলে নিজেদের দাবি করছেন। কেউ বা আবার নিজেদের দাবি করছেন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কুমিল্লা-০৫ আসনে ফুলকপি প্রতীকের প্রার্থী মোঃ সাজ্জাদ হোসেন এর সমর্থিত (সাজ্জাদ হোসেনের লোক)।

এদিকে সাজ্জাদ হোসেন এক প্রশ্নের জবাবে বলেন- আমি মুক্তিযোদ্ধার পক্ষের দল আওয়ামী লীগের সন্তান। যে কিনা মুক্তিযোদ্ধার পক্ষে থাকবে, মুক্তিযুদ্ধের আদর্শ মনে ধারণ করবে তার পক্ষেই আমি মাঠে কাজ করব।

তিনি যাকে সমর্থন করেছেন এই প্রশ্নে জবাবে তিনি বলেন- যেহেতু তারেক হায়দারের বাবা একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন এবং তারেক হায়দার একজন সৎ ও সহজ সরল প্রকৃতির মানুষ। সে কুমিল্লা জেলা পরিষদের সদস্য ছিল এবং সদস্য থাকাকালীন তার কর্মকান্ড সৎ ও নিষ্ঠার সাথে তিনি পালন করেছেন। তাই আমি বুড়িচং উপজেলার চেয়ারম্যান হিসেবে তারেক হায়দার কে সমর্থন জানাচ্ছি।
আর ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে সমর্থন জানাচ্ছি মোহাম্মদ জসীমউদ্দীনকে যার বাবাও একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন। আর জসীমউদ্দিন কে সমর্থন করার মূল কারন হলো সে আমার জানামতে সৎ ও নিষ্ঠাবান একজন মানুষ।

অন্যদিকে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে আমি লাভলী আক্তার কে সমর্থন জানাচ্ছি কেননা একাধারে সে একজন শিক্ষিত মহিলা এবং আবিদপুর কলেজের অধ্যাপিকা। এমন কি সে কুমিল্লা জেলা পরিষদের মহিলা সদস্য ছিলেন। তার বাবা একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা।

তিনি গণমাধ্যম কর্মীদের আরো বলেন – তারা প্রত্যেকে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সন্তান। মুক্তিযোদ্ধার রক্ত তাদের শরীরে বইছে। তারা যদি জনগণের প্রতিনিধি নির্বাচিত হয় আর যাই হোক বুড়িচং উপজেলার উন্নয়নের ধারা অব্যাহত থাকবে।

এদিকে প্রার্থীদের বক্তব্য থেকে জানা যায় তারা সকলেই মোঃ সাজ্জাদ হোসেন সমর্থিতা প্রার্থী এবং উক্ত তিনজন ই সাজ্জাদ হোসেনের নেতৃত্বে তাদের নির্বাচন পরিচালনা করবেন বলে গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন।

Facebook Comments Box